করোনা আপডেটপ্রধান খবরবগুড়া জেলা

বগুড়ায় করোনায় ৭ ও উপসর্গে ৮ জনের মৃত্যু

বগুড়ায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে এবং উপসর্গ নিয়ে আরও ১৫জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে করোনায় ৭জন এবং উপসর্গে ৮জন মারা গেছেন। জেলার তিন হাসপাতাল এবং বাড়িতে চিকিৎসাধীন থেকে সোমবার সকাল ৮টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় তাদের মৃত্যু হয়। করোনায় মারা যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে বগুড়ার ৩জন হলেন- সদরের শামীম আরা(৬০), দুপচাঁচিয়ার শ্রী মুক্তা(১৭) এবং সারিয়াকান্দির মওদুদ আহমেদ(৭০)। এর মধ্যে মওদুদ আহমেদ নিজ বাড়িতে মারা যান।

এছাড়া বগুড়ার বাইরের জেলার ৪জন বাসিন্দা চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনায় মারা গেছেন। তবে বাইরের জেলার মৃত্যুর সংখ্যা যোগ না হওয়ায় মোট মৃত্যুর সংখ্যা বগুড়ার নতুন ৩জনসহ ৫৮৫জনে দাঁড়িয়েছে।

বগুড়ার ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাঃ মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে অনলাইন ব্রিফিংয়ে জেলার করোনা পরিস্থিতি সম্পর্কে ব্রিফিংয়ে এ সব তথ্য জানান।

তিনি জানান, এ ছাড়া বগুড়ায় সংক্রমণ কমেছে। সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ৪৯৯ নমুনায় নতুন করে আরও ৮১জন শনাক্ত হয়েছেন। আক্রান্তের হার ১৬ দশমিক ২৩ শতাংশ। এর মধ্যে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ(শজিমেক) এর পিসিআর ল্যাবে ২৮২নমুনায় ৩২জন, জিন এক্সপার্ট মেশিনে ১০ নমুনায় ৩, এন্টিজেন পরীক্ষায় ১৭৪ নমুনায় ৪০জন এবং টিএমএসএস মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ৩৩ নমুনায় ৬জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে সদরের ৪১, শেরপুরে ১৩, কাহালুতে ৫, গাবতলীতে ৫, শাজাহানপুরে ৫, সারিয়াকান্দিতে ৩, সোনাতলায় ৩, শিবগঞ্জে ২, দুপচাঁচিয়ায় ২, আদমদীঘি ও নন্দীগ্রামে একজন করে।

এছাড়া একই সময়ে করোনা থেকে ১৬৫জন সুস্থতা লাভ করেছেন।

ডা. তুহিন আরও জানান, জেলায় এ পর্যন্ত মোট ১৯ হাজার ২০১জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৭ হাজার ২১৯জন। এছাড়া জেলায় ১ হাজার ৩৯৭জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button