বগুড়া জেলা

বগুড়ায় স্বাস্থ্যকর্মী ও সেচ্ছাসেবীদের মাঝে স্বাস্থ্যসুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ

করোনা পরিস্থিতিতে বগুড়ায় সম্মুখসারিতে থেকে কাজ করা স্বাস্থ্যকর্মী ও সেচ্ছাসেবী সংগঠনের নেতৃবৃন্দদের সুরক্ষার কথা চিন্তা করে প্রায় ১ হাজার ২’শ মাস্ক ও স্যানিটাইজার বিতরণ করেছেন বগুড়া জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এবং বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সুলতান মাহমুদ খান রনি।

বগুড়া জেলা পরিষদের অর্থায়নে প্যানেল চেয়ারম্যান রনি’র প্রাপ্ত বরাদ্দ হতে সোমবার দুপুরে শহিদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে করোনা ইউনিটে কাজ করা স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্যে ৫ শতাধিক এবং সরকারি মোহাম্মদ আলী হাসপাতালের স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্যে ৫ শতাধিক মোট ১ হাজার মাস্ক বিতরণ করা হয়। শজিমেকে এই মাস্ক হস্তান্তর করা হয় হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ মহসীন এবং উপ-পরিচালক ডা: আব্দুল ওয়াদুদের হাতে।

এছাড়াও মোহাম্মদ আলী হাসপাতালে এই সুরক্ষা সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়েছে হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা: নুরুজ্জামান সঞ্চয় এর হাতে। এসময় উপস্থিত ছিলেন হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা: শফিক আমিন কাজলসহ অন্যান্যরা।

এছাড়াও একই দিন বিকেল থেকে রাত পর্যন্ত পর্যায়ক্রমে বগুড়ায় সম্মুখসারিতে থেকে কাজ করা ৩টি রক্তদান সংগঠন যথাক্রমে হেল্প ব্লাড ডোনেশন গ্রুপ, বগুড়া অনলাইন রক্তদান সংগঠন এবং স্টুডেন্ট ব্লাড অর্গানাইজেশন এর সেচ্ছাসেবীদের মাঝে মাস্ক ও স্যানিটাইজার বিতরণ করেছেন সুলতান মাহমুদ খান রনি।
এ প্রসঙ্গে প্যানেল চেয়ারম্যান রনি বলেন, দেশরত্ন শেখ হাসিনার নির্দেশে সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্যসুরক্ষা নিশ্চিতে বগুড়া জেলা পরিষদের অর্থায়নে ৬ হাজার ব্যাগ সুরক্ষা সামগ্রী তৈরি করা হয়েছে যা পরিষদের সকল সদস্যদের মাঝে বিতরণের জন্যে বন্টন করা হয়েছে।

যার ধারাবাহিকতায় তার বরাদ্দ থেকে তিনি ইতিমধ্যেই বগুড়ার সম্মুখসারির গণমাধ্যমকর্মী, শজিমেক ও মোহাম্মদ আলী হাসপাতালের করোনা ইউনিটে কাজ করা স্বাস্থ্যকর্মী, সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যদের মাঝে সুষ্ঠুভাবে বন্টণের চেষ্টা করেছেন। দেশের এই ক্রান্তিকালে তিনি সকলকে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি সকল নির্দেশনা মেনে চলার উদ্বার্ত আহ্বান জানান।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button