বগুড়া সদর উপজেলা

বগুড়ায় বাস থামিয়ে দুই ভাইকে ছুরিকাঘাত

বগুড়ায় চলন্ত বাস থামিয়ে দুই ভাইকে ছুরিকাঘাত করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বগুড়া শহরের জামিলনগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ছুরিকাঘাতে আহতরা হলেন- জেলার নন্দীগ্রাম উপজেলার ভাটগ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক তারেক হোসেন (৩৩) ও তার ছোট ভাই যুবলীগ নেতা মনির হোসেন (২৮)। তারা নন্দীগ্রাম উপজেলার ইসলামপুর গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে। একটি মারামারির মামলায় দুই ভাই আদালত থেকে জামিন নিয়ে বাসে বাড়ি ফিরছিলেন।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তারেক হোসেন জানান, বগুড়া শহরের স্টেশন রোড থেকে দুই ভাই বাড়ি ফেরার উদ্দেশ্যে হাটকড়ইগামী একটি লোকাল বাসে ওঠেন। বাসটি এক কিলোমিটার যাওয়ার পর জামিলনগর এলাকায় জানেসাবা হাউজিংয়ের সামনে ১০-১২ জনের একদল দুর্বৃত্ত বাসটি থামায়। এরপর চালকের কাছ থেকে বাসের চাবি কেড়ে নেয়। বাসের যাত্রীদের সামনে দুর্বৃত্তরা দুই ভাইকে ছুরিকাঘাত করে চালককে বাসের চাবি দিয়ে নেমে যায়।

পরে চালক বাসটি শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে আহত দুই ভাইকে ভর্তি করেন।

জানা গেছে, নন্দীগ্রামের ইসলামপুর আলিয়া মাদ্রাসার অ্যাডহক কমিটির সভাপতি না হতে পেরে গত বুধবার তারেক হোসেন তার লোকজন নিয়ে মাদ্রাসার নতুন সভাপতি নাজমুস সাহাদত সোহেল এবং অধ্যক্ষ মোশাররফ হোসেনকে মারধর ও অবরুদ্ধ করেন। এর জেরেই প্রতিপক্ষ এই হামলা চালাতে পারে।

বগুড়া সদর থানার ওসি সেলিম রেজা বলেন, পুলিশ বৃহস্পতিবার রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। ছুরিকাঘাতের সঙ্গে জড়িতরা নন্দীগ্রাম থানা এলাকার। তাদের গ্রেপ্তার করতে নন্দীগ্রাম থানায় বার্তা পাঠানো হয়েছে।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button