আবহাওয়া

তীব্র দাবদাহে দেশ, বৃষ্টির পূর্বাভাস

বেশ কয়েকদিনের তীব্র দাবদাহে অতিষ্ঠ দেশের মানুষ। রমজানে এমন গরমে নাভিশ্বাস অবস্থা। আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গেছে, ঢাকা, ময়মনসিংহ, রাজশাহী, রংপুর, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে আরও কয়েকদিন।

বিজ্ঞাপন

দাবদাহের যখন এ অবস্থা তখন কিছুটা হলেও স্বস্তির খবর দিলো আবহাওয়া অধিদপ্তর। তবে তার জন্য অপেক্ষা করতে হবে আরও কয়েকদিন। অধিদপ্তর সূত্রে জাা যায়, আগামী পাঁচ দিন শেষে বৃষ্টি ও বজ্রসহ বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে এবং দিনের তাপমাত্রা হ্রাস পেতে পারে।

বিজ্ঞাপন

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা যশোরে ৩৯ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস ও সর্বনিম্ন শ্রীমঙ্গলে ২১ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। ঢাকায় আজ সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৯ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস, সর্বনিম্ন ছিল ২৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়, লঘুচাপের বাড়তি অংশ পশ্চিমবঙ্গ ও এর কাছাকাছি এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমি লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। এ কারণে অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারা দেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।

আবহাওয়াবিদ ড. মুহাম্মদ আবুল কালাম মল্লিক বলেন, প্রায় সারা দেশেই তাপপ্রবাহ বয়ে গেলেও ঢাকায় অনুভূতিটা একটু বেশি। এর কারণ ছয়টি। তা হচ্ছে – দিনের ব্যাপ্তিকাল রাতের তুলনায় বড় হওয়ায় রাতে তাপ বিকিরণ করে ধরণি ঠাণ্ডা করতে পারে না। সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রার পার্থক্য কম, অতিমাত্রায় এসির ব্যবহার, গাড়ির কার্বন বা কালো ধোঁয়া, ঢাকার আশপাশের ইটভাটার কার্বন, ঢাকাকেন্দ্রিক শিল্পপ্রতিষ্ঠানের নিঃসরিত দূষিত পদার্থ। সূর্য মানবসৃষ্ট কারণগুলোকে আরও প্রভাবিত করায় গরম তুলনামূলক বেশি অনুভূত হচ্ছে।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button