খেলাধুলা

প্রীতির মান বাঁচালেন শাহরুখ খান

আইপিএল ১৪তম আসরের অষ্টম ম্যাচে খেলতে নেমেই রেকর্ড গড়লেন চেন্নাই সুপার কিংসের অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। 

বিজ্ঞাপন

আইপিএলের ইতিহাসে নির্দিষ্ট কোনো দলের হয়ে রেকর্ড ২০০তম ম্যাচ খেলার প্রথম কৃর্তী গড়লেন তিনি। 

বিজ্ঞাপন

তার রেকর্ডময় ম্যাচে বিপক্ষ দল পাঞ্জাব কিংসের মাত্র একজন-ই মাথা উঁচু করে খেলেছেন। তিনি হচ্ছেন পাঞ্জাব কিংসের তরুণ ব্যাটম্যান শাহরুখ খান।

বলতে গেলে পাঞ্জাবের মালিক বলিউড অভিনেত্রী প্রীতি জিনতার মান রক্ষা করলেন তামিলনাড়ুর এই ক্রিকেটার।

শুক্রবার মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়ে পাঞ্জাবের অধিনায়ক লোকেশ রাহুল, টি-টোয়েন্টির বস ক্রিস গেইল, হার্ডহিটার নিকোলাস পুরান ও দীপক হুডার মতো ব্যাটসম্যানরা যখন একে এক সবাই ব্যর্থ, তখন অন্যপাশ ধরে দুর্দান্ত ব্যাট করেছেন শাহরুখ খান।

৩৬ বলে চার বাউন্ডারি ও ২ ছক্বায় ৪৭ রান করে আউট হন তিনি। যা পাঞ্জাব দলের ব্যক্তিগত ইনিংসের সর্বোচ্চ। হয়তো আরো হাতখুলে খেলতে পারতেন। কিন্তু প্রথম ৫ ওভারেই টপঅর্ডারের চার ব্যাটসম্যান গায়েব হয়ে যাওয়ায় মারকুটে মেজাজ হারান শাহরুখ।

দায়িত্বশীল ইনিংস খেলে ২৬ রানে ৫ উইকেট হারানো পাঞ্জাবকে একাই টেনে নিয়ে গেছেন শাহরুখ। 

মায়াঙ্ক আগারওয়াল, কেএল রাহুল, ক্রিস গেইল, দীপক হুডা ও নিকোলাস পুরান- প্রথম সারির এই ৫ ব্যাটসম্যানের সবমিলিয়ে রান যোগ করেছেন মাত্র ২৫। 

অমন পরিস্থিতিতে নিজেদের আইপিএল ইতিহাসের সর্বনিম্ন ইনিংসের ভয়ে কাঁপছিল পাঞ্জাব। আইপিএলে সর্বনিম্ন ৭৩ রানে অলআউট হওয়ার রেকর্ড রয়েছে পাঞ্জাবের। 

ঠিক তখনই দলের হাল ধরেন শাহরুখ খান। ঝাই রিচার্ডসনকে সঙ্গে নিয়ে ষষ্ঠ উইকেটে ৩১ রানের জুটি গড়ে আইপিএলের সর্বনিম্ন রানের রেকর্ডের লজ্জা পার করে দেন এই তরুণ তুর্কি। 

রিচার্ডসন ১৫ রানে ফিরে গেলেও থামেননি শাহরুখ। মুরুগান অশ্বিন ও মোহাম্মদ শামিকে নিয়ে দলীয় রান ১০০ পার করেন ।

অর্থাৎ শাহরুখ হাল না ধরলে দলগত তিন অংকের ফিগারে পৌঁছানো তো দূরের কথা সর্বনিম্ম স্কোর ৭৩ পার করাই সম্ভব হতো হয়ত।

শেষ ওভারে স্যাম ক্যারানের বলে আউট হয়ে ৩ রানের জন্য অর্ধশতক বঞ্চিত হন শাহরুখ। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১০৬ রান করতে সক্ষম হয় প্রীতি জিনতার দল। যা ২৬ বল বাকি থাকতেই পার করে দেয় ধোনির চেন্নাই। 

কিন্তু এমন হারের পরও যে কেউ-ই বলবেন প্রীতি জিনতার মান বাঁচিয়েছেন শাহরুখ খান। 

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button