বিনোদন

সেন্সরে যাচ্ছে ট্রান্সজেন্ডার তাসনুভার সিনেমা ‘কসাই’

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে বিভিন্ন মাধ্যমে বেশ আলোচিত একটি নাম ‘তাসনুভা আনান শিশির’। দেশের প্রথম রূপান্তরিত নারী সংবাদ পাঠিকা তিনি। নারী দিবসে সংবাদ পাঠিকা হিসেবে যুক্ত হয়েছেন বৈশাখী টেলিভিশনে। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে রীতিমতো ভাইরাল বনে গেছেন তাসনুভা।

বিজ্ঞাপন

থিয়েটারের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তাসনুভা। সংবাদ পাঠিকা হওয়ার আগেই অভিনয় করেছেন ‘কসাই’ সিনেমায়। এটি পরিচালনা করেছেন অনন্য মামুন। সিনেমায় ‘শিশির’ চরিত্রে দেখা যাবে তাসনুভাকে। এমনটাই জানিয়েছেন নির্মাতা।

বিজ্ঞাপন

তিনি আরো জানান, এরই মধ্যে সিনেমার ডাবিং এবং পোস্ট প্রডাকশনের কাজ শেষ হয়েছে। আগামীকাল (১০ মার্চ) সেন্সরে প্রদর্শনের জন্য জমা হবে সিনেমাটি। সেন্সর ছাড়পত্র পেলেই মুক্তির তারিখ নির্ধারণ করা হবে।

রূপান্তরিত নারী তাসনুভাকে ‘কসাই’ সিনেমায় কাস্টিং প্রসঙ্গে অনন্য মামুন সময়নিউজকে বলেন, ‘আমি কখনোই উনাকে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ মনে করিনি। আমি উনাকে একজন মানুষ হিসেবেই কাস্টিং করেছি। এটা উনি ভালো করেই জানে। কোনো অনুগ্রহ বা করুণা থেকে কাস্টিং করিনি, তার যোগ্য বলেই কাস্টিং করেছি।’

আলোচিত এ নির্মাতা আরো বলেন, ‘সংবাদ পাঠের আগেই কিন্তু উনি আমার সিনেমায় কাজ করেছেন। আমি এটা হাইলাইটেড করতে চাইনি। আমার কাছে মনে হয়ে এটিকে হাইলাইট করা মানে উনাকে ছোট করা। এটির ডাবিং শেষ, শুটিং শেষ তাও আমি বিষয়টি কাউকে জানাইনি। কারণ উনাকে ধরে আলাদা কোনো সুবিধা আমি নিতে চাইনি।’

সিনেমাটি প্রসঙ্গে জানতে তাসনুভার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে পাওয়া যায়নি তাকে। তাসনুভা আনান শিশির ছাড়াও ‘কসাই’ সিনেমায় আরো অভিনয় করেছেন চিত্রনায়ক নিরব, এলিনা শাম্মী, কাজী নওশাবা, প্রিয়মনি প্রমুখ। সেন্সরের গণ্ডি পেরুলে আগে সিনেমা হলে মুক্তি পাবে সিনেমাটি। তারপর ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তির পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান নির্মাতা অনন্য মামুন।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button