জাতীয়

জাপানে পুরস্কার জিতলো বাংলাদেশের আলোকচিত্র ‘শতবর্ষী আনন্দ’

জাপানে অনুষ্ঠিত থার্ড মেহুডো ইন্টারন্যাশনাল ইয়ুথ ভিজ্যুয়াল মিডিয়া ফেস্টিভ্যালে পুরস্কার জিতেছে বাংলাদেশের ‘শতবর্ষী আনন্দ’ শীর্ষক একটি আলোকচিত্র। এটির আলোকচিত্রী জে. মুমু বগুড়া সরকারী আজিজুল হক কলেজ থেকে চলতি বছর উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছেন। বর্তমানে তিনি বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

মুমু বলেন, ‘লকডাউনের অবরুদ্ধ সময়ে ছবিটি মুঠোফোনে ধারণ করেছিলাম। ছবির চরিত্র প্রায় শতবর্ষী এক দরিদ্র নারী। দারিদ্রতার কষাঘাতে জরাজীর্ণ হয়েও তিনি করোনাময় পৃথিবীতে বেঁচে থাকতে চান। জীবনের শেষ প্রান্তে এসেও বেঁচে থাকার আকাঙ্খা ও আনন্দকে ছবিটিতে ধারণ করতে চেয়েছি। ছবিটি বাংলাদেশের জন্য এতো বড় সম্মান বয়ে আনবে তা কখনো ভাবিনি।’

সম্প্রতি জাপানে অনুষ্ঠিত তিন দিনব্যাপী থার্ড মেহুডো ইন্টারন্যাশনাল ইয়ুথ ভিজ্যুয়াল মিডিয়া ফেস্টিভ্যালে বেস্ট ফটোগ্রাফি বিভাগে পুরস্কার জিতেছে জে. মুমুর ‘শতবর্ষী আনন্দ।’ এজন্য মুমুকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে হয়েছে উৎসবে অংশ নেওয়া ৭৪টি দেশের ২০০ আলোকচিত্রীর সাথে। ইতোপূর্বে ছবিটি রোমানিয়ার স্যাপিক্সেল ইন্টারন্যাশনাল ফটো কনটেস্ট ২০২০ এবং যুক্তরাজ্যের হান্টিংটন বিচ কালচারাল সিনেমা শোকেস এর ফটোগ্রাফি বিভাগের মূল প্রতিযোগিতা বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছে।

সম্পর্কিত পোস্ট

Back to top button