কাঁচা বাজারবগুড়া

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় বগুড়ার অস্থায়ী বাজার পরিদর্শনে জেলা প্রশাসক

বগুড়ায় করোনার আক্রান্তের সংখ্যা প্রতিদিনই বাড়ছে। তাইতো করোনার ২য় ঢেউ মোকাবিলায় সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে শহরের সবচেয়ে বড় বাজার ফতেহ আলী ও রাজাবাজারের খুচরা দোকানগুলো আলতাফুন্নেছা খেলার মাঠে স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা প্রশাসন।

বিজ্ঞাপন

সকাল থেকে দোকানগুলো বসতে শুরু করে। সকাল ১১.৩০ মিনিটে বাজার পরিদর্শনে যান বগুড়া জেলা প্রশাসক মো: জিয়াউল হক।

বগুড়া জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্য অনু্যায়ী গতকাল পর্যন্ত জেলায় করোনায় মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৯ হাজার ৩৬৩ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৮ হাজার ৪৮০জন। অপরদিকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে ২১৮ জনের এবং বর্তমানে করোনায় চিকিৎসাধীন রয়েছে ৬৬৫জন।

তাইতো সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখতে রাজাবাজার ও ফতেহ আলী বাজারের খুচরা ও কাঁচা বাজার স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা প্রশাসন।

এদিকে জেলা প্রসাশনের এমন স্বিদ্ধান্তকে স্বাদুবাদ জানিয়েছেন বাজার কমিটির নেতা রাজাবাজার ব্যবসায়িক মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক পরিমল প্রসাদ রাজ।

ব্যবসায়িক মালিক সমিতির সাথে কয়েকদফা মতামতের ভিত্তিতে বাজার স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানান জেলা প্রশাসক জিয়াউল হক।

তিনি বলেন, শহরের গুরুত্বপূর্ণ এলাকাগুলোতে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বাজার স্থানান্তরের বিষয়টি সকলকে অবগত করতে মাইকিং করা হচ্ছে। এ বছরের ১৩ এপ্রিল বগুড়া শহরে করোনার প্রকোপ ঠেকাতে ১ম বারের মত রাজাবাজার ও ফতেহ আলী বাজারের খুচরা ও কাঁচা বাজার স্থানান্তর করা হয়েছিল তবে সেসময় বৃষ্টিতে তা লন্ডভন্ড হয়ে যায়। তবে এবার ঘটবে না কোন রকম প্রাকৃতিক দূর্যোগ এমনটাই প্রত্যাশা সবার।

তিনি সবাইকে মাস্ক ব্যবহার করার আহ্বান জানান।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button