জাতীয়

দশ মাসে ধর্ষণের শিকার ১৩৪৯ জন, শিশুর সংখ্যা বেশি

দেশে গত ১০ মাসে এক হাজার ৩৪৯ জন নারী ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এর মধ্যে শিশুরাই বেশি ধর্ষণের শিকার হয়েছে। ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে ৪৬ জনকে আর আত্মহত্যা করেছে ১৩ নারী। এছাড়া ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে আরো ২৭১ জনকে।

আজ বেসরকারি মানবাধিকার সংগঠন আইন ও সালিশ কেন্দ্রের (আসক) ওয়েবসাইট থেকে এই পরিসংখ্যান জানা গেছে। 

আসক চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে অক্টোবর পর্যন্ত দেশে ধর্ষণের শিকার নারীদের বিষয়ে পরিসংখ্যান প্রকাশ করেছে।

পরিসংখ্যানে বলা হয়েছে, ছয় বছর বয়সী ৯৬ জন শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে, সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছে দুজন, ধর্ষণের ফলে মারা গেছে একজন এবং ৩৯ জন ধর্ষণচেষ্টার শিকার হয়েছে। 

এছাড়া সাত থেকে ১২ বছরের মধ্যে শিশুদের মধ্যে ১৭৮ জন ধর্ষণের শিকার হয়েছে, ১২ জন সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার, ১১ জনকে ধর্ষণের পরে হত্যা করা হয়েছে, একজন  আত্মহত্যা করেছে এবং ৫৯ জন ধর্ষণচেষ্টার শিকার হয়েছে।

১৩ থেকে ১৮ বছরের কিশোরীদের মধ্যে ১৮৯ জন ধর্ষণের শিকার, ৬৫ জন সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার, ধর্ষণের পরে ১১ জনের মৃত্যু ও ধর্ষণের পরে ছয়জন আত্মহত্যা করেছে।

এছাড়া ১৯ থেকে ২৪ বছরের নারীদের মধ্যে ৫৩ জন ধর্ষণের শিকার, ২৪ জন সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার, সাতজনকে ধর্ষণের পর হত্যা, একজন আত্মহত্যা করেছে এবং চারজনকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে।

২৫ থেকে ৩০ বছরের নারীদের মধ্যে ২১ জন ধর্ষণের শিকার হয়েছে, সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১২ জন, ধর্ষণের পরে হত্যা করা হয়েছে পাঁচজনকে, ধর্ষণের পরে আত্মহত্যা করেছে একজন ও ধর্ষণচেষ্টার শিকার হয়েছে একজন।

সম্পর্কিত পোস্ট

Back to top button
error: Content is protected !!