খেলাধুলা

অবশেষে জয় পেয়েছে মুশফিকের বেক্সিমকো ঢাকা

প্রথম তিন ম্যাচ হারের পর অবশেষে বঙ্গবন্ধু টি-টুয়েন্টি কাপে জয়ের দেখা পেল বেক্সিমকো ঢাকা। আজ টুর্নামেন্টের নবম ম্যাচে তামিম ইকবালের ফরচুন বরিশালকে ৭ উইকেটে হারিয়েছে ঢাকা। ৪ ম্যাচে ১টি করে জয় ও ৩টি হারে ঢাকা-বরিশালের পয়েন্ট এখন সমান ২ করে। রান রেটে এগিয়ে চতুর্থস্থানে বরিশাল, পঞ্চম ও শেষ দল হিসেবে তলানিতে ঢাকা।


মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে বোলিং করার সিদ্বান্ত নেয় মুশফিকের বেক্সিমকো ঢাকা। ব্যাট হাতে বরিশালের হয়ে তামিমের ব্যাটিংএ শুরুটা ভালোই ছিলো। ৪ দশমিক ৪ ওভারে ২৭ রান পায় বরিশাল। এরমধ্যে ৯ রান অবদান ছিলো তামিমের ওপেনিং পার্টনার সাইফ হাসানের।


এরপর দুই মিডল-অর্ডার ব্যাটসম্যান পারভেজ হোসেন ইমন ও আফিফ হোসেন খালি হাতে ফিরলে ২৮ রানে ৩ উইকেট হারায় বরিশাল। এই ৩ উইকেটই নিয়েছেন স্পিনার রবিউল ইসলাম রবি।
এরপর ৩৭ রানের জুটি গড়ে পরিস্থিতি সামাল দেয়ার চেষ্টা করেছিলেন তামিম ও তৌহিদ হৃদয়। এই জুটিতে ভাঙ্গন ধরান প্রথম ৩ উইকেট নেয়া রবি। ৩টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩১ বলে ৩১ রান করে রবির বলে আউট হন তামিম।


তামিমের বিদায়ের পর দলের এক প্রান্ত আগলে রাখেন তৌহিদ হৃদয়। তবে সতীর্থদের যথার্থ সহযোগিতা পাননি তিনি। ফলে ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১০৮ রানের মামুলি সংগ্রহ পায় বরিশাল। ২টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩৩ বলে ৩৩ রান করেন হৃদয়। ঢাকার রবি ৪ ওভারে ২০ রানে ৪ উইকেট নেন।

জয়ের জন্য ১০৯ রানের টার্গেটে শুরুতেই ২৩ রানে ২ উইকেট হারায় ঢাকা। ওপেনার হিসেবে নেমে ২ রান করেন বল হাতে ৪ উইকেট নেন রবি। আরেক ওপেনার মোহাম্মদ নাইম ১৩ রান করেন। দু’জনই রান আউট হন।

শুরুর ধাক্কা সামাল দেয়ার চেষ্টা করে বেশি দূর যেতে পারেননি অধিনায়ক মুশফিক ও তানজীদ হাসান। ৩১ রানের জুটি দাড় করান তারা। ২০ বলে ২২ রান করেন তানজীদ।

দলীয় ৫৪ রানে তৃতীয় উইকেট পতনের পর শক্ত হাতে দলের হাল ধরেন মুশফিক ও ইয়াসির আলি। চতুর্থ উইকেটে অবিচ্ছিন্ন ৫৫ রান করে ঢাকাকে প্রথম জয়ের স্বাদ দেন মুশফিক ও ইয়াসির। মুশফিক ঠান্ডা মেজাজে খেললেও, মারমুখী ছিলেন ইয়াসির।

৩০ বলে ৩টি চার ও ২টি ছক্কায় অপরাজিত ৪৪ রান করেন ইয়াসির। ৩৪ বলে ২৩ রানে অপরাজিত থাকেন মুশফিক। ম্যাচ সেরা হয়েছেন রবি।


সংক্ষিপ্ত স্কোর:


ফরচুন বরিশাল: ১০৮/৮, ২০ ওভার (হৃদয় ৩৩, তামিম ৩১, রবি ৪/২০)।


বেক্সিমকো ঢাকা: ১০৯/৩, ১৮.৫ ওভার (ইয়াসির ৪৪*, মুশফিক ২৩*, মিরাজ ১/১৩)।


ফল: বেক্সিমকো ঢাকা ৭ উইকেটে জয়ী।


ম্যাচ সেরা:: রবিউল ইসলাম রবি (বেক্সিমকো ঢাকা)।

সম্পর্কিত পোস্ট

Back to top button
error: Content is protected !!