স্বাস্থ্য

পায়ের গোড়ালি ফাটছে? জেনেনিন এর সমাধান

শীতকাল মানেই ত্বক রুক্ষ ও শুষ্ক হওয়ার সমস্যা। এ সময় ত্বকের বাড়তি যত্নের প্রয়োজন হয়। সাধারণত আমরা মুখ, হাত, চুলের যত্ন নিই, কিন্তু পায়ের দিকে অতটা খেয়াল রাখি না। এতে পায়ের সৌন্দর্য কমে, পায়ের গোড়ালি ফাটতে শুরু করে।

স্বাস্থ্য ও জীবনধারাবিষয়ক ওয়েবসাইট বোল্ডস্কাইয়ের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পায়ের যত্ন নিতে ঘরে তৈরি ফুট মাস্ক ব্যবহার করতে পারেন। এর ফলে সহজেই পায়ের গোড়ালি ফাটার সমস্যা দূর হবে।

নারকেল ও কলার ফুট মাস্ক

টুকরো করে কাটা কলা ও লম্বা করে কাটা চার টুকরো নারকেল নিন। কলার টুকরোর সঙ্গে নারকেলের টুকরো একসঙ্গে ব্লেন্ডারে দিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন। এবার নারকেল ও কলার মিশ্রণটি পায়ের ফাটা জায়গায় ভালো করে লাগান। শুকিয়ে গেলে হালকা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। পা ফাটার সমস্যার সমাধান করতে এ মাস্কটি ব্যবহার করুন।

দই-কলার ফুট মাস্ক

একটি পাকা কলা, এক কাপ দই, এক চামচ চিনি, কয়েক ফোঁটা ল্যাভেন্ডার অয়েল, কয়েক ফোঁটা টি ট্রি অয়েল এবং একটি বড় পাত্র নিন। দই গরম করুন এবং কলা ম্যাশ করুন। দই ও কলা ভালো করে মেশান। এরপর এতে চিনি মেশান। পেস্ট হয়ে গেলে তেল মিশিয়ে ভালো করে মাখিয়ে নিন। ১০ মিনিট পেস্টটি রেখে দিন। এরপর পায়ে ম্যাসাজের জন্য পেস্টটি ব্যবহার করুন।

পা ম্যাসাজ করতে একটি গামলায় হালকা গরম পানি নিয়ে তাতে লেবু ও মধু মিশিয়ে পা ডুবিয়ে রাখুন। পানি থেকে পা বের করুন। তোয়ালে দিয়ে ভালো করে পা মুছুন। এবার দই ও কলার ফুট মাস্ক পায়ে ভালোভাবে লাগান। মাস্ক শুকানোর পর ধীরে ধীরে পায়ে ম্যাসাজ করুন। তারপর মাস্ক তুলে দিন। মাস্ক অপসারণ করার পর হালকা গরম পানি দিয়ে পা ধুয়ে নিন। এরপর পায়ে কোল্ড ক্রিম লাগান।

দইয়ে ল্যাকটিক অ্যাসিড, আলফা হাইড্রোক্সি অ্যাসিড রয়েছে, যা মৃত ত্বকের নিরাময়ে সহায়তা করে। কলা ত্বককে ময়েশ্চারাইজ করতে সহায়তা করে। কলা ব্যবহার করে ফাটা গোড়ালি ভালো করা যায়।

গ্লিসারিন ও গোলাপজলের ফুট মাস্ক

এক চামচ লেবুর রস, এক চামচ গ্লিসারিন, এক চামচ গোলাপজল নিন। সব উপকরণ ভালো করে মিশিয়ে মিশ্রণ তৈরি করুন। এবার একটি গামলায় হালকা গরম পানি নিন। এরপর তাতে এক চামচ লবণ, একটি লেবুর রস ও এক কাপ গোলাপজল মেশান। এর মধ্যে ১৫ মিনিট পা ভিজিয়ে রাখুন। তারপর খসখসে কিছু একটা দিয়ে পায়ের গোড়ালি ভালো করে ঘষে মৃত ত্বক তুলে ফেলুন এবং পা ধুয়ে নিন। এরপর মিশ্রণটি পায়ে লাগিয়ে সারা রাত রেখে দিন। সকালে হালকা গরম পানি দিয়ে পা ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দু-তিন বার করলে ফল টের পাবেন।

সম্পর্কিত পোস্ট

Back to top button