ধুনট উপজেলা

ধুনট – বগুড়া জেলার একটি উপজেলা



ধুনট বাংলাদেশের বগুড়া জেলার অন্তর্গত একটি উপজেলা। বগুড়া জেলা হতে দক্ষিণ পূর্বে ৩৫ কিলোমিটার দূরত্বে ধুনট উপজেলা অবস্থিত। অনেক জ্ঞ্যানী ও গুণী ব্যক্তির জন্ম এই ধুনটে।

বিজ্ঞাপন


ধুনট থানা গঠিত হয় ১৯৬২ সালে এবং থানা উপজেলায় রুপান্তরিত হয় ১৯৮৩ সালে। উপজেলায় গ্রাম রয়েছে ২১২ টি। এই উপজেলায় ১০টি ইউনিয়ন রয়েছে। ইউনিয়নগুলো হলো:
নিমগাছি ইউনিয়নকালের পাড়া ইউনিয়নচিকাশী ইউনিয়নগোসাইবাড়ী ইউনিয়নভান্ডারবাড়ী ইউনিয়নধুনট ইউনিয়নএলাঙ্গী ইউনিয়নচৌকিবাড়ি ইউনিয়নমথুরাপুর ইউনিয়নগোপালনগর ইউনিয়নএছাড়া রয়েছে ধুনট পৌরসভা যা ২০০১ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়।


সীমানাঃ এ উপজেলার উত্তরে গাবতলী উপজেলা ও সারিয়াকান্দি উপজেলা, দক্ষিনে সিরাজগঞ্জ জেলার রায়গঞ্জ উপজেলা, পশ্চিমে শাহজাহানপুর উপজেলা ও শেরপুর উপজেলা, পূর্বে কাজীপুর উপজেলা।


শিক্ষাঃ শিক্ষায় এই উপজেলা অনেক এগিয়ে। এখানে আছে বেশকিছু উল্লেখযোগ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ধুনট উপজেলা সদরের ধুনট এন ইউ পাইলট সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয় অত্র এলাকার শ্রেষ্ঠ মাধ্যমিক বিদ্যালয় যা ১৯৪১ সালে স্থাপিত। গোসাইবাড়ি উচ্চ বিদ্যালয় স্থাপিত ১৯১৮। মেয়েদের জন্য শিক্ষার শ্রেষ্ঠ বিদ্যালয় ধুনট পাইলট উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় স্থাপিত ১৯৭৭। উচ্চশিক্ষা পর্যায়ের শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ ধুনট সরকারি কলেজ স্থাপিত ১৯৭২। ধুনট মহিলা কলেজ স্থাপিত ১৯৯৬। ইসলামি শিক্ষার জন্য আছে সবথেকে পুরাতন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জোড়খালি সিনিয়র মাদ্রাসা স্থাপিত ১৯১১।


কৃতী ব্যক্তিত্বঃড. মাহফুজুর রহমান, চেয়ারম্যান, এটিএন বাংলা।ড. আলী আকবর, উপাচার্য, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়।ড. আমিনুল হক, উদ্ভাবক, রাবি ধান-১এস এম শফিউজ্জামান, মহাসচিব, বাংলাদেশ ওষুধ শিল্প সংস্থা।আনোয়ারুল ইসলাম শাহীন, ব্যারিস্টার, সুপ্রীম কোর্ট বাংলাদেশ।মো. হাবিবর রহমান, সাংসদ, বগুড়া-৫

তথ্যসূত্রঃবাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন (জুন ২০১৪)। এক নজরে ধুনট”। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার।

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button
ভাষা নির্বাচন