সোনাতলা উপজেলা

প্রেমের টানে বরিশাল থেকে বগুড়ার সোনাতলায় এসে প্রতারণার শিকার

মোবাইল ফোনে প্রেমের টানে বরিশাল থেকে বগুড়ার সোনাতলা এসে প্রতারণার শিকার হয়েছেন এক তরুণী (১৪)। ওই কিশোরীর বাড়ি বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলা ভবানীপুর এলাকায়।
জানা যায়, ওই কিশোরী বগুড়া আসার পর জানতে পারে, তার প্রেমিক বিবাহিত। এ ছাড়া প্রেমিক শরিফুল ইসলাম (২৮) ওই কিশোরীকে মোবাইল ফোনে যে ছবি দিয়েছিল সেটিও তার নয়।
সোনাতলা উপজেলার বালুয়া ইউনিয়নের গবারপাড়া গ্রামের দিনমজুর শরিফুল ইসলামের সঙ্গে বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলা ভবানীপুর এলাকার এক কিশোরীর মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।
মোবাইল ফোনে তারা ছবিও আদান-প্রদান করে। সম্প্রতি ওই যুগল ঘর বাধার সিদ্ধান্ত নেয়। সেই মোতাবেক শরিফুল তার প্রেমিকা শারমিনকে সোনাতলায় আসতে বলেন। প্রেমিকের কথামতো গত বৃহস্পতিবার বরিশাল থেকে রওনা দিয়ে শুক্রবার সোনাতলার বালুয়াহাটে এসে পৌঁছায় ওই কিশোরী।
শুক্রবার তারা উপজেলারর বালুয়া ইউনিয়নের রশিদপুর গ্রামে তার মামা শহিদুল ইসলামের বাড়িতে গিয়ে ওঠে। এরপর শরিফুল বিবাহিত ও তার ছবি না দিয়ে অন্য ছবি দেওয়ার কারণে ওই যুগলের মধ্যে কথার কাটাকাটি হলে বিষয়টি স্থানীয় লোকজনের নজরে আসে।
স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দিলে গতকাল সোমবার রাতে ওই যুগলকে আটক করে সোনাতলা থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। সোনাতলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান মেয়েটির পরিবারকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা আসলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন

এ বিভাগের অন্য খবর

Back to top button