কাহালু উপজেলা

বগুড়ার কাহালুতে শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার

বগুড়ার কাহালুতে গত (৬ সেপ্টেম্বর) রাতে নিখোঁজ হওয়া এক কলেজ ছাত্রের লাশ আজ সকালে বাড়ির পাশের একটি পুকুর পাড়ে মাটি চাপা দেওয়া অবস্থায় উদ্ধার করেছে পুলিশ।

আজ সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) সকালে উপজেলার মালঞ্চা ইউনিয়নাধীন ডোমর গ্রামের একটি পুকুর পাড়ে মাটিতে চাপা দিয়ে পুতে রাখা অবস্থায় আরমান হাসান আন্না (১৯) নামে এক কলেজ পড়ুয়া ছাত্রের লাশ দেখতে পায় এলাকাবাসী। পরে কাহালু থানায় খবর দিলে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ।

আরমান ওই গ্রামের আইজুল ইসলামের ছেলে এবং গাইবান্ধা সরকারি কৃষি কলেজের ১ম বর্ষের ছাত্র। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সুজন (২২) ও ওবায়দুর (৩০) নামে দুই যুবককে আটক করে কাহালু থানা পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আরমান করোনার কারণে বেশ কিছুদিন ধরে গ্রামেই ছিল। গত রবিবার (৬ সেপ্টেম্বর) রাত অনুমানিক ৮টা পর্যন্ত আরমান ও সুজনকে গ্রামের ওই পুকুর পাড়ে বসে গল্প করতে দেখে নিহতের পরিবারের লোকজন। কিন্তু রাতে আরমান বাড়ি না ফিরলে পরিবারের সদস্যরা তাকে খুঁজতে শুরু করে।

খোঁজাখুজির এক পর্যায় ডোমরগ্রামের খাঁপাড়ায় ইটের দেয়ালে ঘেরা একটি পুকুর পাড়ে মাটি খনন করতে দেখে সন্দেহ হয় তাদের। পরে সেখানে মাটিতে পুঁতে রাখা অবস্থায় আরমানের লাশের সন্ধান পাওয়া যায়।

তবে কি কারণে এই হত্যাকান্ড ঘটেছে সে ব্যাপারে এখনো কোন তথ্য পায়নি পুলিশ।

এ ঘটনায় কাহালু থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জিয়া লতিফুল ইসলাম জানান, প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে আরমানকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। তবে হত্যাকাণ্ডের কারণ সম্পর্কে এখনো কিছু নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে স্থানীয়দের ধারণা মতে এলাকায় কোনো বিরোধের জেরে আরমানকে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে। এ ঘটনায় দু’জনকে আটক করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বিস্তারিত জানা যাবে।

Back to top button