গাবতলী উপজেলাবগুড়া সদর উপজেলা

শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মণির বগুড়া সফর; যা যা বলে গেলেন

শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মণি বলেছেন, দেশের স্বাধীনতা ও মর্যাদার জন্য লড়াইয়ের মূল্যবোধ ও চেতনা নিয়ে নতুন প্রজন্ম তথা শিশুদের বড় হতে হবে। ‘সর্বস্তরে শিক্ষার মানোন্নয়নের যে অঙ্গীকার বর্তমান সরকার করেছে তা বাস্তবায়ন করা হবে। আমাদের জীবন ও দেশকে সুন্দর করতে আমরা কথায়, কাজে ও আচরণে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারণ করে অগ্রসর হচ্ছি।’ মুজিববর্ষে ২০২০-২০২১ এ প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মুজিব জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে নানা কর্মসূচী পালনে সরকারের পাশাপাশি প্রতিষ্ঠান পক্ষের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। তাহলেই এদেশ বঙ্গবন্ধু জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ অনুপ্রাণিত হবে।

মুজিববর্ষ উপলক্ষে ২৯ ফেব্রুয়ারি শনিবার বেলা সাড়ে ১১টায় বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল ও কলেজে বঙ্গবন্ধু একাডেমিক ভবন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন। অনুষ্ঠানে সমাগত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘তোমরা সকলেই ভাবতে শেখ যে, আমি মুজিব হব, আমরা সব সময় মানুষের পাশে দাঁড়াব। আমরা চাই আমাদের সন্তানরা বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বুকে ধারণ করে নিজেকে গড়ে তোলে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (পদোন্নতিপ্রাপ্ত) আরিফুর রহমান মন্ডলের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন- বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ শাহাদৎ আলম ঝুনু। অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন- প্রধানমন্ত্রীর স্ক্রিপ্ট রাইটার (সচিব) নজরুল ইসলাম, বগুড়ার জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু, সহ-সভাপতি টি জামান নিকেতা, সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু, বগুড়া জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ডা. মকবুল হোসেন প্রমুখ।

এর আগে শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মণি বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল অ্যান্ড কলেজের ৪তলা ভিত্তির ওপরে নির্মিত একতলা একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন করেন এবং সেই ভবনটি ঊর্ধ্বমুখী সম্প্রসারণের ঘোষণা দেন। পরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা মন্ত্রীকে শুভেচ্ছা উপহার প্রদান করে। পরে সেখান থেকে তিনি সৈয়দ আহম্মেদ কলেজের সুবর্ন জয়ন্তীতে বলেন,এই সরকারের সময়ে অপরাধ করে কেউ পার পাবে না। সরকার অপরাধীর অপরাধ দেখে, তার রাজনৈতিক দল বা পরিচয় বিবেচনা করে না। প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. দিপু মনি আরো বলেন,শিক্ষার হার বাড়ানোর জন্য একসময় সরকারকে ব্যাপক কাজ করতে হয়েছে। শিক্ষার হারে আমরা অনেক এগিয়ে গেছি। এখন শিক্ষার হার শতভাগে উন্নীত করাই আমাদের লক্ষ্য। সরকার শিক্ষা ও শিশুস্বাস্থ্য খাতের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। এসব উন্নয়কাজে কারো অনিয়ম বা অপরাধ বরদাশত করা হবে না।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রওনক জাহানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন প্রধানমন্ত্রীর স্পিচ রাইটার নজরুল ইসলাম, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব ড. মাসুমুর রহমান, জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ, প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষ নজবুল হক।

Back to top button